মানিকগঞ্জে বিয়ের প্রলোভনে তরুণী ধর্ষণ মামলায় যুবক কারাগারে

মানিকগঞ্জ : মানিকগঞ্জে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে এক তরুনীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে সিঙ্গাপুর ফেরত এক যুবকের বিরুদ্ধে। আব্দুর রব শাহীন নামের (৩৫) ওই যুবক পৌরসভার বনগ্রাম এলাকার (মানিকগঞ্জ জেলা পরিষদের পেছনে) রজ্জব আলীর ছেলে।

নির্যাতিতা ওই তরুণী গত জুলাই মাসের ৭ তারিখে মানিকগঞ্জ সদর থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইন ২০০০ (সংশোধনী ২০১৩) এর ৯(১) ধারায় মামলা দায়ের করেন। গত ৪ আগষ্ট সেই মামলায় আসামী শাহীন জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিনের আবেদন করে। পরে আদালতের বিচারক শাকিল আহমেদ তার জামিন নামঞ্জুর করে জেলহাজতে প্রেরণ করেন। আসামী শাহীন বর্তমানে জেলা কারাগারে রয়েছে।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, মানিকগঞ্জ পৌরসভার বান্দুটিয়া এলাকার এক তরুনীর সাথে ফেসবুকের মাধ্যমে পরিচয় হয় শাহীনের। তখন শাহীন সিঙ্গাপুরে কর্মরত ছিলেন। গত ৪ বছর আগে শাহীন দেশে এসে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ওই তরুনীর সাথে শারীরিক সম্পর্ক করে। শাহীন ওই তরুনীকে বিয়ের কথা বলে বিভিন্নস্থানে নিয়ে শারীরিক সর্ম্পক করতে থাকে। পরবর্তীতে ওই তরুনী তাকে বিয়ের জন্য চাপ দিলে সে নানা অযুহাত দিতে থাকে। গত জুন মাসের ২০ তারিখে রাতে শাহীন ওই তরুনী বাসায় গিয়ে তার সাথে শারীরিক সর্ম্পক করতে চায়। এতে তরুণী বাধা প্রদান করলে শাহীন তাকে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে বিভিন্ন হুমকি ধামকি দিয়ে চলে যায়। ওই শাহীন ওই তরুনীর সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেয়। পরে ওই তরুনী শাহীনের বাসায় গেলে তার মা তাকে জানিয়ে দেয় যে তার ছেলে তাকে বিয়ে করবে না।

মানিকগঞ্জ সদর থানার ওসি মোহাম্মদ রকিবুজ্জামান জানান, নির্যাতনের শিকার ওই তরুনী শাহীনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেছে। মামলাটি বর্তমানে তদন্তনাধীন অবস্থায় রয়েছে। এর মধ্যে আসামী শাহিন আদালতে জামিনের জন্য আত্মসমর্পন করলে আদালত তার জামিন নামঞ্জুর করে তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে।

সবখবর/ নিউজ ডেস্ক

Facebook Comments