রূপগঞ্জে গৃহবধূকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলে বিদেশ পাঠিয়ে নির্যাতনের অভিযোগ

লিখন রাজ, রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) : নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে হেলেনা বেগম (৪৬) নামে এক গৃহবধূকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলে বিদেশে পাঠিয়ে অত্যাচার চালানো হচ্ছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় রোববার সকালে ওই গৃহবধূর স্বামী আরমান মিয়া বাদী হয়ে রূপগঞ্জ থানায় একটি অভিযোগ দেন। গৃহবধূ হেলেনা বেগম উপজেলার হাটাবো টেকপাড়া এলাকার আরমান মিয়ার স্ত্রী।

আরমান মিয়া জানান, উপজেলার হাটাবো টেকপাড়া এলাকায় স্ত্রী হেলেনা বেগম ও তিন সন্তানকে নিয়ে সুখে শান্তিতে বসবাস করে আসছিল।

উপজেলার নল পাথর এলাকার আসলাম মিয়া আরমান মিয়ার স্ত্রী হেলেনা বেগমকে ফুসলিয়ে নানা রকম প্রলোভন দেখিয়ে কাজ করার জন্য বিদেশে পাঠানো কথা বলে আসছিল। গত ৬ জুলাই সকাল ৭ টার দিকে স্ত্রী হেলেনা বেগমকে বাসায় রেখে আরমান মিয়া কর্মস্থলে চলে যান। কর্মস্থল থেকে বাড়ি ফিরে হেলেনা বেগমকে বাড়িতে না পেয়ে তিনি অত্মীয় স্বজনসহ চারদিকে খুজাখুজি শুরু করেন।

পরে গত ১০ জুলাই তিনি মানুষের কাছে জানতে পারেন প্রতারক আসলাম মিয়া তার স্ত্রীকে সুকৌশলে সৌদীআরব পাঠিয়ে দিয়েছে। গত ১৫ জুলাই সৌদী আরব থেকে হেলেনা বেগম স্বামী আরমান মিয়াকে ফোন করে জানায় তারা তাকে বিদেশে কোন কাজ না দিয়ে একটি আবদ্ধ ঘরে আটকে রেখে নির্যাতন চালাচ্ছে।

আরমান মিয়া গত ১৭ জুলাই প্রতারক আসলাম মিয়াকে তার স্ত্রীর সাথে প্রতারনার কথা জিজ্ঞাসা করলে সে তার কাছে ২০ হাজার টাকা দাবি করেন হেলেনা বেগমকে দেশে নিয়ে আনার জন্য। তার কথামতো আরমান মিয়া প্রতারক আসলাম মিয়াকে ২০ হাজার টাকা প্রদান করেন। টাকা প্রদানের পরও প্রতারক আসলাম মিয়া হেলেনা বেগমকে দেশে নিয়ে আনার ব্যবস্থা করেননি।

এ ব্যাপারে রূপগঞ্জ থানার ওসি মাহমুদুল হাসান বলেন, এ ধরনের অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত মোতাবেক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সবখবর/ আওয়াল

Facebook Comments