মানিকগঞ্জে অনলাইন পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্স ভেরিফিকেশন সফটওয়ার ভিত্তিক কার্যক্রম শুরু - সব খবর | Sob khobar
  1. admin@sobkhobar.com : admin :
  2. editor@sobkhobar.com : editor :
মানিকগঞ্জে অনলাইন পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্স ভেরিফিকেশন সফটওয়ার ভিত্তিক কার্যক্রম শুরু - সব খবর | Sob khobar




মানিকগঞ্জে অনলাইন পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্স ভেরিফিকেশন সফটওয়ার ভিত্তিক কার্যক্রম শুরু

সব খবর রিপোর্ট
  • প্রকাশের সময়: শুক্রবার, ২৯ নভেম্বর, ২০১৯
  • ২০৬৪ জন পড়েছে

মানিকগঞ্জ : মানিকগঞ্জ জেলায় অনলাইন পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্স ভেরিফিকেশন সফটওয়ার ভিত্তিক কার্যক্রম শুরু হয়েছে। শুক্রবার বেলা ১১ টায় পুলিশ সুপারের সম্মেলন কক্ষে প্রেসবিফ্রিং করা হয়।

এসময় সহকারী পুলিশ সুপার (ডিএসবি) হামিদুর রহমান সিদ্দিকী, ডিআইও-১ রবিউল ইসলাম, প্রেসক্লাবের সভাপতি গোলাম ছারোয়ার ছানু, সাধারণ সম্পাদক বিপ্লব চক্রবর্তীসহ বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক্স মিডিয়ার সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

প্রেসব্রিফিং এ জানানো হয়, প্রধানমন্ত্রী’র ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার অংশ হিসেবে জনাব হাবিবুর রহমান, বিপিএম (বার), পিপিএম(বার), ডিআইজি, ঢাকা রেঞ্জ, বাংলাদেশ পুলিশ মহোদয়ের উদ্যোগে ঢাকা রেঞ্জের ১৩ টি জেলার পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের জন্য নতুন একটি সফটওয়্যার উদ্ভোধন করেছেন। উক্ত সফটওয়্যারের মাধ্যমে মানিকগঞ্জ জেলার সকল প্রকার পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে। পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্স আবেদনকারীগণ তদন্ত কার্যক্রম শুরুর সঙ্গে সঙ্গে সয়ংক্রিয়ভাবে তদন্তকারী অফিসারের নাম ও মোবাইল নম্বর এবং ঢাকা রেঞ্জের একটি সাপোর্ট মোবাইল নম্বর জেনে যাবেন মোবাইলে এসএমএস-এর মাধ্যমে।

একইসাথে তদন্তকারী অফিসারও জেনে যাবেন তার নিকট তদন্তের জন্য প্রদান করা পাসপোর্ট ও পুলিশ ক্লিয়ারেন্সের আবেদনকারীর মোবাইল নম্বরসহ অন্যান্য তথ্য। আবেদনকারীগণ তার নিকট প্রেরিত মোবাইল নম্বরে যোগাযোগ করে জানতে পারবেন তার আবেদনের সর্বশেষ অবস্থা। অপরদিকে তদন্তকারী অফিসার জরুরী পাসপোর্টের ক্ষেত্রে তিন দিন এবং সাধারণ পাসপোর্টের ক্ষেতে পাঁচ দিনের মধ্যে তদন্ত সম্পন্ন করে প্রতিবেদন প্রেরণ করবেন।

এ ক্ষেত্রে আবেদনকারীর মোবাইলে এসএমএস-এর মাধ্যমে প্রতিবেদন তার পক্ষে বা বিপক্ষে গিয়েছে তা জানানো হবে। নির্ধারিত সময়ের মধ্যে তদন্তকারী অফিসার তদন্ত শেষ করে প্রতিবেদন দাখিল না করলে ঢাকা রেঞ্জের মনিটরিং শাখা এবং সংশ্লিষ্ট জেলার পুলিশ সুপারের নিকট সয়ংক্রিয়ভাবে তথ্য প্রদান করবে সফটওয়ারটি।

এছাড়াও তদন্ত সংশ্লিষ্ট কোন অভিযোগ বা পরামর্শ জানাতে আবেদনকারীর মোবাইলে পাঠানো ঢাকা রেঞ্জের সাপোর্ট নম্বরে ফোন করতে পারবেন। উল্লেখ্য যে পাসপোর্ট এবং পুলিশ ক্লিয়ারেন্স ভেরিফিকেশনে সচ্ছতা এবং জবাবদিহিতা নিশ্চিত করতে ঢাকা রেঞ্জের ডিআইজি মহোদয় গত তিন মাসব্যাপী বিভিন্ন সমীক্ষা ও পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে সফলভাবে সফটওয়ারটি উন্মুক্ত করেন।




Comments are closed.

এই বিভাগের আরো খবর




ফেসবুকে সব খবর